শুক্রবার , ১৪ আগস্ট ২০২০
Menu
সর্বশেষ সংবাদ
Home » আন্তর্জাতিক » খালেদা জিয়ার গাড়ি বহরে দফায় দফায় হামলা
খালেদা জিয়ার গাড়ি বহরে হামলা করার চিত্র

খালেদা জিয়ার গাড়ি বহরে দফায় দফায় হামলা

খালেদা জিয়ার গাড়ি বহরে হামলা করার চিত্র

খালেদা জিয়ার গাড়ি বহরে হামলা করার চিত্র
নাজমিন রিয়া, বাংলাদেশ
আসন্ন ঢাকা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে বিএনপি সমর্থিত মেয়র পদপ্রার্থীদের পক্ষে নির্বাচনী প্রচারে নেমে নিয়মিত বাঁধা ও হামলার শিকার হচ্ছেন দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া। মাত্র একদিনের ব্যবধানে গত সোম ও মঙ্গলবার খালেদা জিয়ার উপর দু’দফা হামলার ঘটনা ঘটেছে। এছাড়াও বিভিন্ন স্থানে গণসংযোগকালে কালো পতাকা প্রদর্শণসহ আতংক সৃষ্টির অভিযোগ উঠেছে ছাত্রলীগ নেতা কর্মীদের বিরুদ্ধে।
গত সোমবার বিকালে ঢাকা উত্তরের মেয়র প্রার্থী তাবিথ আউয়ালের পক্ষে প্রচারণাকালে রাজধানীর কারওয়ান বাজারে খালেদা জিয়ার পথসভা ও গাড়িবহরে হামলা করে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থী আনিসুল হকের কর্মীরা। এসময় তার গাড়ি বহরের স্পেয়ার কারসহ অন্তত ১০টি গাড়ি ভাংচুর করা হয়। হামলাকারীরা লাঠিসোটা এবং আশপাশের ভবনের ছাদ থেকে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ করে। এসময় খালেদা জিয়াকে দ্রুত সরিয়ে নেয়া হলে বড় ধরণের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়ানো সম্ভব হয়। হামলায় চেয়ারপারসনের ব্যক্তিগত নিরাপত্তারক্ষীদের কয়েকজন আহত হন। এরমধ্যে একজনের অবস্থা গুরুতর।
এ হামলার রেশ না কাটতেই মঙ্গলবার রাতে আবারো নির্বাচনী প্রচারণা কালে হামলার কবলে পড়ে খালেদা জিয়ার গাড়িবহর। এসময় তিনি রাজধানীর ফকিরাপুলে ঢাকা দক্ষিণের বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী মির্জা আব্বাসের পক্ষে নির্বাচনী গণসংযোগ করছিলেন। প্রত্যক্ষদর্শীদের ভাষ্য, রাত সাড়ে ৮টার দিকে বিএনপির চেয়ারপারসনের গাড়িবহর যখন নয়াপল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সমানে দিয়ে ফকিরাপুল বাজারের সামনে গিয়ে দাঁড়ায়। তখনই দুর্বৃত্তরা গাড়িবহর লক্ষ্য করে ঢিল ছুড়ে মারে। এতে ওই এলাকায় উত্তেজনা সৃষ্টি হয় এবং ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে।
সোমবারের হামলার পর, ঘটনার প্রতিবাদে ওইদিন সন্ধ্যায় নয়াপল্টন কার্যালয়ে জরুরি সংবাদ সম্মেলন ডেকে মঙ্গলবার সারাদেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি এবং বুধবার সকাল-সন্ধ্যা হরতালের কর্মসূচি ঘোষণা করেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ। তবে ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগর এলাকা সকল কর্মসূচির আওতামুক্ত থাকবে বলে জানান তিনি। সংবাদ সম্মেলনে আরো জানানো হয়, বিএনপি চেয়ারপারসনের নির্বাচনী প্রচারে বাধা দেয়ার পরও তিনি প্রচারকাজ অব্যাহত রাখবেন।
কারওয়ান বাজারের ওই হামলার ঘটনায় উল্টো বিএনপি নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা করেন স্থানীয় এক আওয়ামী লীগ নেতা। বিএনপির পক্ষ থেকে মামলা দায়ের করতে গেলে প্রাথমিক অভিযোগ নিয়ে মামলার আবেদন অপেক্ষমান রাখা হয়। পরে মামলাটি গ্রহণ করে পুলিশ।
এদিকে, হামলার পর গণভবনে দলের সংসদীয় কমিটির বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী বলেন, খালেদা জিয়া নাটক করছেন। এছাড়াও গাড়িবহরে এ হামলার ঘটনাকে খালেদা জিয়ার প্রতি জনগনের ক্ষোভের বহি:প্রকাশ হিসেবে বর্ণানা করেন একাধিক আওয়ামী লীগ নেতা। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, হামলার খবর শতভাগ সত্য নয়। এসময় তিনি খালেদা জিয়ার নিরাপত্তা কর্মীদের বিরুদ্ধে অকারণে গুলি ছোড়ার অভিযোগ করেন।
এর আগে, গত রোববার উত্তরা এলাকায় আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের বাধার মুখে পড়েছিল খালেদা জিয়ার গাড়িবহর। এসময় কালো পতাকা ও জুতা প্রদর্শণসহ জয় বাংলা এবং উস্কানীমূলক বিভিন্ন স্লোগান নিয়ে আতংক সৃষ্টি করেন তারা।

আরও দেখুন

ফেইস মাস্ক না পড়লে ৩২০০ পাউন্ড ও অবৈধ পার্টি করলে ১০ হাজার পাউন্ড পর্যন্ত জরিমানা

বাংলা সাংলাপ রিপোর্টঃ ব্রিটিশ তরুনদের বিরুদ্ধে ফেইস না পড়া, বারবার সরকারের নিয়ম নীতি অমান্য করার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *